সর্বশেষ

জনগণকে বিভ্রান্ত করা হচ্ছে

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, জাতিসংঘ উন্নয়ন কর্মসূচির (ইউএনডিপি) মানব উন্নয়ন সূচকে প্রমাণ হয় সরকার উন্নয়নের নামে জনগণকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছে।

মঙ্গলবার দুপুরে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেছেন, ‘এ সরকার বলছে তারা যথেষ্ট উন্নয়ন করেছে। তারা নিজেদের উন্নয়নের রোল মডেল বলছে। আজকের পত্রিকায় আছে- ইউএনডিপি যে রিপোর্ট দিয়েছে, তাতে দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশের অবস্থান পঞ্চম।’

‘মানব উন্নয়ন সূচকে বাংলাদেশ ভুটানেরও নিচে। এতেই বোঝা যায় উন্নয়নের কথা যেটা বলা হচ্ছে সেটা জনগণকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা। এর উদ্দেশ্য হচ্ছে তারা ক্ষমতায় টিকে থাকতে চায়’যোগ করেন তিনি।

এ সময় বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘আজকে দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব বিপন্ন হয়ে পড়ছে। সীমান্তে হত্যা হচ্ছে। রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে দিতে পারছে না। বাস্তবতা হলো- গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা না থাকলে দেশে কোনো দিন কোনো কিছু সম্ভব হয় না। ’

তিনি বলেন, ‘এ সরকার সব ক্ষেত্রে স্বাধীনতার সব চেতনা ধ্বংস করে দিয়েছে। অর্থনীতিকে বাজে পরিণত করেছে। বিচার বিভাগের স্বাধীনতাকে দলীয়করণ করেছে। সংসদকে পুরোপুরি অকেজো করেছে। নির্বাচন ব্যবস্থা সম্পূর্ণভাবে ভেঙে দিয়েছে ফলে এখন বিশিষ্ট নাগরিকরা বক্তব্য রাখছেন। ’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘আমরা স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী পালন করতে যাচ্ছি। আমাদের সামনে একটাই লক্ষ্য ১৯৭১ সালে স্বাধীনতাযুদ্ধে যে মূল চেতনা নিয়ে আমরা লড়াই সংগ্রাম করেছিলাম, গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য যারা লড়াই করে জীবন দিয়েছেন, তাদের সেই মর্যাদা পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা। ’

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদ্‌যাপন কমিটির আহ্বায়ক ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন ও সদস্য সচিব আবদুস সালাম।

50% LikesVS
50% Dislikes
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ