সর্বশেষ

মাইকেল জ্যাকসন অমর হতে চেয়েছিলেন !

সংগীত কিংবদন্তি মাইকেল জ্যাকসন। ২০০৯ সালে মারা গেছেন তিনি। কিন্তু তার রহস্যময় জীবন নিয়ে আলোচনা এখনো থেমে নেই। সম্প্রতি সাংবাদিক ডায়লান হাওয়ার্ডের ‘ব্যাড: অ্যান আনপ্রেসিডেন্টেড ইনভেস্টিগেশন ইনটু দ্য মাইকেল জ্যাকসন কাভার আপ’ নামে একটি বই প্রকাশ করেছেন। এতে তিনি জানিয়েছেন, অমর হতে চেয়েছিলেন মাইকেল জ্যাকসন। জীবনের শেষ মুহূর্তে এসেছে ডায়েরিতে নিজের ইচ্ছের কথা লিখেছিলেন পপ কিং।

বইতে মাইকেল জ্যাকসনের হাতে লেখা নোটও রাখা হয়েছে, যেখানে তিনি তার আইডল চার্লি চ্যাপলিন ও ওয়াল্ট ডিজনির মতো অমর হওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেন। বইয়ে উল্লেখিত নোটপ্যাড পেজে মাইকেল লিখেছেন, ‘আমি যদি সিনেমায় মনোযোগ না দিতে পারি, তাহলে অমর হতে পারব না।’

এছাড়া প্রথম মাল্টি বিলিয়নিয়ার অভিনেতা-পরিচালক ও এন্টারটেইনার হতে চেয়েছিলেন মাইকেল জ্যাকসন। প্রতি সপ্তাহে তার ২০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আয়ের লক্ষ্য ছিল। কনসার্ট ও নাইকির মতো বড় ব্র্যান্ডের সঙ্গে চুক্তির মাধ্যমে এই অর্থ আয়ের পরিকল্পনা করেছিলেন তিনি। শুধু তাই নয়, ‘২০০০০ লিগস আন্ডার দ্য সি’ এবং ‘দ্য সেভেন্থ ভয়াজ অব সিনবাদ’ সিনেমার রিমেক করতে চেয়েছিলেন জনপ্রিয় এই গায়ক।

মাইকেল জ্যাকসন মনে করতেন, কেউ তাকে হত্যা করতে চাইছে, তার ধ্বংস চাইছে। তিনি লেখেন, ‘আমি খুব ভয় পাচ্ছি, কেউ একজন আমাকে মেরে ফেলতে চাইছে। খারাপ মানুষ সব জায়গায় রয়েছে। আমার প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান দখলের জন্য আমাকে ধ্বংস করতে চাইছে। আমি যে ক্যাটালগ বিক্রি করতে চাইছি না এজন্য সিস্টেম আমাকে মেরে ফেলতে চাইছে।’

ঋণের বোঝা দূর করতে জীবনের শেষ দিকে এসে ক্যারিয়ারে নিয়ে নতুন করে ভেবেছিলেন মাইকেল। লেখক হাওয়ার্ড দাবি করেছেন, তার এই বইয়ে এই গায়কের মনস্তাত্ত্বিক ও অজানানা বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরা হয়েছে।

50% LikesVS
50% Dislikes
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ