সর্বশেষ

আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে জাতির পিতার সমাধিতে শ্রদ্ধা

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭১তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধীতে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবীর নানক ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাহাউদ্দিন নাছিমের নেতৃত্বে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিসৌধ বেদিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ। পরে বঙ্গবন্ধু ও পরিবারের নিহত সদস্যদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন তারা।

কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের শ্রদ্ধা নিবেদনের পরে জেলা আওয়ামী লীগ, টুঙ্গিপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন সংগঠন জাতির পিতার সমাধীতে শ্রদ্ধা জানান।

এ সময় কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস.এম কামাল হোসেন, সদস্য সাহাবুদ্দিন ফরাজী, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি চৌধুরী এমদাদুল হক, সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব আলী খান, প্রচার সম্পাদক এম বদরুল আলম বদর, টুঙ্গিপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল বাশার খায়ের, টুঙ্গিপাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান সোলাইমান বিশ্বাসসহ দলীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর সমাধীতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবীর নানক সাংবাদিকদের বলেন, আওয়ামী লীগ বাংলাদেশ ও গণ মানুষের দল। স্বাধীনতা উত্তোর বাংলাদেশ ও পাকিস্তানীদের ধ্বংস যজ্ঞের মধ্য দিয়ে বির্নিমাণকালে বঙ্গবন্ধুকে পৌচাশিকভাবে হত্যা করা হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সন্ত্রাস জঙ্গিবাদ ও দারিদ্রতাকে উপড়ে ফেলেছেন। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এ দেশের জনগণের দল, স্বাধীনতা, মুক্তিযুদ্ধ ও আর্থনৈতিক মুক্তির এক ও অভিন্ন।

যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাহাউদ্দিন নাসিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতত্বে দীর্ঘ ৩৯ বছরের পথ পরিক্রমা অত্যান্ত কঠিন ছিল। অত্যান্ত দুর্বিষহ দিন পর করে গণতন্ত্র রক্ষা ও স্বৈরাচার পতন ঘটানো হয়েছে। যারা সাম্প্রদায়িক শক্তি, যারা দেশে সাম্প্রদায়িক দণ্ড সৃষ্টি করে সোনার বাংলাদেশ গড়ার বাধা সৃষ্টি করে তাদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সুন্দর বাংলাদেশ গড়ার কাজ করছে। অদৃশ্য শক্র করোনা মোকাবেলায় শেখ হাসিনার নেতৃত্বে কাজ করছে আওয়ামী লীগ।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ