সর্বশেষ

তারেক রহমানসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে মামলার আদেশ ২২ মার্চ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তি করার অভিযোগে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে করা মানহানি মামলার আদেশের জন্য ২২ মার্চ দিন ধার্য করেছেন আদালত।

১৮ ফেব্রুয়ারি একই আদালতে মামলাটি করেন বাংলাদেশ জননেত্রী পরিষদের সভাপতি এবি সিদ্দিকী। সেদিন বিচারক বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ করে নথি পর্যালোচনা করে পরে আদেশ দেবেন বলে জানান।

মামলার অপর আসামিরা হলেন- জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক ও লন্ডনের আইন ছাত্র পরিষদের সভাপতি শাহিদুর রহমান, জামায়াত নেতা মো. আফজাল হোসেন, মো. মুজিবুর রহমান, মো. আবদুল করিম, হাফেজ মো. দিদারুল ইসলাম, মো. জাকির হোসেন, মো. আব্দুল হালীম, রফিকুল ইসলামসহ অজ্ঞাতনামা বিএনপির আরও তিনজন।

মামলার এজাহারে অভিযোগ করা হয়, গত বছরের ৬ ডিসেম্বর লন্ডন থেকে তারেক রহমানের নির্দেশে রাজধানীর মিরপুরে বাদীকে আসামিরা আটক করে। এর পর আসামিরা বাদীকে শর্ত দিয়ে বলে যে— ‘আমাদের মা খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানসহ নেতাকর্মীদের নামে যতগুলো মামলা করেছিস, আগামী সাত দিনের মধ্যে তা প্রত্যাহার করে নিবি। তা না হলে আবারও তোকে ও তোর প্রধানমন্ত্রীকে ২১ আগস্টের মতো গ্রেনেড মেরে খুন করব।’

মামলার বাদী এবি সিদ্দিকী এর প্রতিবাদে তারেক রহমানসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন করেন। এজাহারে আরও বলা হয়, ‘মামলা করার কারণে পরে জামায়াত-শিবির ও বিএনপির গুণ্ডাবাহিনী বাদীকে খুন করার জন্য খুঁজতে থাকে। ফলে বাদী বর্তমানে চিন্তিত ও আতঙ্কিত।

এবি সিদ্দিকী জানান, প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি করায় তিনি অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেন।

50% LikesVS
50% Dislikes
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ